নোয়াখালী জজকোর্টের নাজির আলমগীর, স্ত্রী ও বোন কারাগারে

December 09, 2019 11:12:AM

নিজস্ব রিপোর্ট:  অর্থ পাচার, সরকারি টাকা আত্নসাৎ এবং অবৈধ সম্পদ অর্জনসহ বিভিন্ন অনিয়মের অভিযোগে দুদকের দায়ের করা মামলায় নোয়াখালী জজকোর্টের নাজির মো: আলমগীর ও তার স্ত্রী নাজমুন নাহার এবং বোন আফরোজা আক্তারকে কারাগারে প্রেরণের নির্দেশ দিয়েছে নোয়াখালী জেলা জজ আদালত।গত বৃহস্পতিবার বিকেলে নোয়াখালী জেলা ও দায়রা জজ সালাহ উদ্দিন আহম্মেদের আদালত এ আদেশ দেন।

দুদক কার্যালয় সূত্রে জানা গেছে, জেলা জজকোর্টের নাজির আলমগীর নিজের দাপ্তরিক পরিচয় গোপন করে নিজেকে রড-সিমেন্ট ব্যবসায়ী পরিচয় দিয়ে মেসার্স ঐশী ট্রেডার্স নামের ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে বিভিন্ন ব্যাংকের শাখায় ১০টি হিসাব খুলেন। এতে ২০১৬ থেকে ২০১৯ সাল পর্যন্ত ২৭ কোটি ৮২ লাখ টাকা অবৈধভাবে লেনদেন করেন।এর মধ্যে আয় বহির্ভূতভাবে ৭ কোটি ১৭ লাখ ৩৫ হাজার ৬২৫ টাকার অবৈধ সম্পদ অর্জন করায় দুদক নোয়াখালী কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক সুবেল আহম্মেদ গত ৫ আগস্ট বাদী হয়ে একটি মামলা করেন।মামলায় নাজির মো: আলমগীর ও তার স্ত্রী চিপ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট কোর্টের পেশকার নাজমুন নাহার (সাময়িক বরখাস্ত,আলমীরের বোন আফরোজা আক্তার এবং তার বন্ধু ফেনী জেলার দাগনভূঁইয়া উপজেলার ফাজিলপুর গ্রামের মৃত বেনু লাল ভৌমিকের ছেলে বিজন ভৌমিককে আসামি করা হয়।

মামলার প্রেক্ষিতে গত ৫ আগস্ট মো: আলমগীরকে মাইজদী শহর থেকে গ্রেফতার করে দুদক। পরে ঐ দিনই তিনি কোর্ট থেকে জামিন নেন। বাকি ৩ আসামি গত ১৬ আগস্ট উচ্চ আদালত থেকে ৮ সপ্তাহের জামিন নেন।

জামিনের মেয়াদ শেষ হলে গত বৃহস্পতিবার মো:আলমগীর ও তার স্ত্রী,বোন এবং তার বন্ধু নোয়াখালী জেলা ও দায়রা জজ সালাহ উদ্দিন আহম্মেদের আদালতের হাজির হয়ে আত্মসমর্পণ করে জামিন প্রার্থনা করেন। দীর্ঘ শুনানী শেষে আদালত মো: আলমগীর ও তার স্ত্রী নাজমুন নাহার এবং বোন আফরোজা আক্তারকে কারাগারে প্রেরণের নির্দেশ দেন

Related Post